আজ ২২শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৭ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সাংবাদিক মুজাক্কির হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি গাজীপুর বিএমএসএফ

গুলিবিদ্ধ উদীয়মান সাংবাদিক বুরহান উদ্দিন মুজাক্কির হত্যাকারীদের দ্রুত বিচার আইনে গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করা হয়েছে। দেশব্যাপী কর্মসূচির অংশ হিসেবে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের গাজীপুর জেলার আয়োজনে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে সকাল ১১টায় অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সমাবেশে এ দাবি করা হয়।

প্রতিবাদ সমাবেশে কেন্দ্রীয় বিএমএসএফ’র সহ সভাপতি ড. এ কে এম রিপন আনসারীর সভাপতিত্বে ও বাংলাদেশ অনলাইন সম্পাদক পরিষদের কেন্দ্রিয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক তুহিন সারোয়ারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমবেশে বক্তব্য রাখেন, গাজীপুর জেলা রিপোটার্স ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক এম এ ফরিদ, জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা গাজীপুর জেলা শাখার সভাপতি মুছা খান রানা, গাজীপুর জেলা রিপোটার্স ক্লাবের কার্যকরী সভাপতি মোঃ আকরাম হোসেন, মোস্তাকিম, গাজীপুর জেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম ভূইয়া, সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি গাজীপুর জেলা শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক মাযহারুল ইসলাম রবীন, গাজীপুর জেলা বিএমএসএফ’র আহবায়ক কমিটির সদস্য টিটু কান্তিকর, মোঃ হাসান আলী, গাছা প্রেসক্লাবের সাংগঠকি সম্পাদক আশরাফুল আলম মন্ডল, কালিাকৈর প্রেসক্লাবের পক্ষে নির্বাহী সদস্য মহসিন মোল্লাহ সহ প্রমূখ।

এদিকে একই সাথে সারাদেশের জেলা উপজেলায় বিএমএসএফ’র কেন্দ্রীয় কর্মসূচীর অংশ হিসেবে বিভিন্ন ব্যানারে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় সংশ্লিষ্ট গণমাধ্যম ব্যক্তিত্ব ও সাংবাদিক সমাজ দায়ী ব্যক্তির গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোড় দাবি জানিয়ে সরকারের নিকট সাংবাদিক নির্যাতন বন্ধে আইন প্রণয়নের দাবি করেন। তা না হলে সাংবাদিক সংগঠনগুলোর ব্যানারে বৃহত্তর কর্মসূচীর ডাক দেয়া হবে।

উল্লেখ্য, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলর চাপরাশিরহাট স্থানীয় আওয়ামীলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষকালে অস্ত্র ব্যবহারের ভিডিওধারণ করছিল মুজাক্কির। ক্ষিপ্ত হয়ে একটি পক্ষের সন্ত্রাসীরা তাকে ধরে নিয়ে ভিডিও ডিলেট করতে চাপ প্রয়োগ করে। এ সময় বাঁচাও বাঁচাও করে আকুঁতি করলেও কেউ তাকে রক্ষা করতে এগিয়ে আসেনি। ভিডিও ডিলেটে অসম্মতি জানালে তাকে গুলি করা হয়। তিনদিন মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়ে গত ২১ ফেব্রুয়ারি রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে তিনি মারা যান। সম্প্রতি সংবাদের জেরধরে গাজীপুরে সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি আবু বকর সিদ্দিককে পিটিয়ে তিনটি হাতপা ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়। সুনামগঞ্জের তাহিরপুরে কামাল হোসেনকে বালু-পাথরখেকো সন্ত্রাসিরা গাছের সাথে বেঁধে নির্যাতনকে মধ্যযুগীয় বর্বরতাও হার মেনে যায়। সন্ত্রাসীর হামলার ঘটনাসহ দেশব্যাপী সাংবাদিক হয়রাণী, নির্যাতন, ছাটাই ও মামলায় গোটা সাংবাদিক সমাজ অতিষ্ট। এ থেকে পরিত্রান পেতে বিএমএসএফ ঘোষিত ১৪ দফা বাস্তবায়ন জরুরী হয়ে পড়েছে।

এ সময় উক্ত সমাবেশে আরো উপস্থিত ছিলেন, বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম কেন্দ্রীয় কমিটির সহসম্পাদক মোঃ আব্দুল হামিদ খান, অর্থ বিষয়ক সম্পাদক শারমিন সুলতানা মিতু, বিএমএসএফ গাজীপুর জেলার সাবেক যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ও দৈনিক একুশের বাণী পত্রিকার যুগ্ন বার্তা সম্পাদক মোঃ সোহেল মিয়া, জাতীয় বীর ‍মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রউফ নয়ন, জাতীয় বীর মুক্তিযোদ্ধা ও গাজীপুর জেলা প্রেসক্লাবের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সম্পাদক খন্দকার মোঃ হাছিবুর রহমান, মহানগর প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক মোঃ শহীদুল ইসলাম, গাজীপুর সদর উপজেলা প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মোশারফ হোসেন প্রধান, গাছা প্রেসক্লাবের দপ্তর সম্পাদক মোঃ আমিনুল ইসলাম রবিন, গাছা প্রেসক্লাবের প্রচার সম্পাদক মোঃ রফিকুল ইসলাম, গাছা প্রেসক্লাবের কার্য নির্বাহী সদস্য মোঃ নজরুল ইসলাম, গাজীপুর জেলা প্রেসক্লাবের অর্থ বিষয়ক সম্পাদক ডাঃ বোরহান উদ্দিন অরণ্য, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক ইসমাইল হোসেন মাষ্টার, দপ্তর সম্পাদক আলী আজগর খান পিরু, সাংগঠনিক সম্পাদক আক্তার হোসেন, গাজীপুর সদর উপজেলা প্রেসক্লাবের সহ সভাপতি রমজান আলী রুবেল ও জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা গাজীপুর জেলা শাখার মনির হোসেন মানিক,সিএনএন টিভির রনি হোসেন, সাংবাদিক নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি গাজীপুর জেলা শাখার মহিলা বিষায়ক সম্পাদীকা সুমা আক্তার লুবনা।

সার্বিক ব্যবস্থাপনায় অনুষ্ঠিত কর্মসূচিতে বিভিন্ন সাংবাদিক সংগঠনের নেতৃবৃন্ধ অংশ গ্রহন করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
%d bloggers like this: