আজ ১৪ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৯শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

করোনা নামক মহামারী যুদ্ধে আমরা জয়লাভ করবো ইনশাআল্লাহ -আব্দুল্লাহ আল মামুন মন্ডল

মোঃ আরিফ মৃধাঃ

সারা বিশ্বে এক আতঙ্কের নাম করোনা ভাইরাস।ইউরোপ আমেরিকা থেকে শুরু করে বিশ্বের প্রভাবশালী এমন কোন রাষ্ট্র নেই যেখানে করোনা ভাইরাস আঘাত করেনি। প্রাণঘাতী এই মহামারীর কাছে বিশ্ব আজ বড় অসহায়।সারা বিশ্ববাসী আজ নিরুপায় হয়ে গেছে। বিশ্ব চিকিৎসা বিজ্ঞানকে চোখ রাঙ্গিয়ে দাপিয়ে বেড়াচ্ছে।

আধুনিক চিকিৎসা বিজ্ঞান পুরোপুরি ব্যর্থ হয়ে গেছে মারাত্মক ছোঁয়াচে এই মহামারী নিকট। অদৃশ্য এই দানবের দাপটের কাছে মানুষ আজ বড় অসহায়।তাদের যেন কোন কিছুই করার নেই। একমাত্র ভরসা শুধু মহান রাব্বুল আলামিন পরম করুনাময় আল্লাহ তাআলার উপর। মানুষকে এখন কেবল আল্লাহই যেন রক্ষা করতে পারে, এছাড়া তাদের যাওয়ার আর কোন জায়গা নেই। প্রতিদিন হাজার হাজার লোকের প্রাণ কেড়ে নিচ্ছে করোনা।

আক্রান্ত হচ্ছে লক্ষ লক্ষ লোক। সারাবিশ্বের ন্যায় বাংলাদেশেও এর বিস্তার ঘটেছে। ইতিমধ্যেই ডাক্তার-নার্স জনপ্রতিনিধি সহ বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে। এই দুর্যোগময় মুহূর্তে যে যেভাবে পারছে মানুষকে সহায়তা করে যাচ্ছে। তারপরও কিছু স্বার্থান্বেষী মহল, যারা সবসময় নিজেদের আখের গোছানোর চিন্তা করে তারা কিন্তু দুর্নীতি করেই যাচ্ছে।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা একটি মানুষ যেন না খেয়ে থাকে। সেলক্ষ্যে নেতা-কর্মীদের ইতোমধ্যেই তিনি নির্দেশনা দিয়েছেন। তারপরও কিছু স্বার্থপর মানুষ খাদ্য সরবরাহ নিয়ে বিভিন্ন রকমের দুর্নীতির আশ্রয় নিচ্ছেন। প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী এদেরকে কোন রকমের ছাড় দেওয়া হবেনা। যত বড় নেতাই হোক তারা কোনমতেই ক্ষমা পাবে না।

৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী ধরা পড়ে। এরপর থেকে প্রতিদিনই কেউ না কেউ আক্রান্ত হচ্ছে। মানুষ মানুষের এই দুর্দিনে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। এবং তাদের পাশে এসে সাহস যোগাচ্ছেন। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৩৫ নম্বর ওয়ার্ড থেকে বারবার বিপুল ভোটে নির্বাচিত কাউন্সিলর আলহাজ্ব আব্দুল্লাহ আল মামুন মন্ডল নিজেকে উজাড় করে দিয়ে, নিজের পরিবারের কথা চিন্তা না করে রাত দিন মানুষের পাশে থেকে সাধ্যমত সাহায্য সহযোগিতা করে যাচ্ছেন। তিনি বলেন মানবসেবা হচ্ছে সবচেয়ে বড় ধর্ম। আমার সাধ্য অনুযায়ী আল্লাহপাক আমাকে যতটুকু তৌফিক দান করেছেন সেই অনুযায়ী আমি মানুষের সেবা করে যাচ্ছি।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী একটি মানুষ যাতে না খেয়ে থাকে সে লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছি। আমি চেষ্টা করে যাচ্ছি মহানগরে বসবাসরত প্রত্যেকটি অসহায় দরিদ্র খেটে খাওয়া মানুষের ঘরে ঘরে ত্রাণ পৌঁছে দেওয়ার। হয়তো এর মধ্যে ভুল ভ্রান্তি থাকতে পারে। সে ভুল ভ্রান্তি গুলো শুধরে নিয়ে সামনের দিনগুলোতে আরো বেশি মানুষের পাশে থেকে তাদের সেবা করতে পারি সে জন্য সকলের সহযোগিতা কামনা করছি। ইনশাআল্লাহ আমরা এই দুর্যোগ থেকে মুক্তি পাব।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নির্দেশনা অনুযায়ী প্রতিটি মানুষ যেন ঘরে থাকে, অকারনে অযথা কেউ যেন বাইরে না যায় সে বিষয়ের প্রতি তিনি গুরুত্বারোপ করেন।চ্যানেল এইচ টিভি বাংলার সাথে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে আব্দুল আল মামুন মন্ডল এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, আমরা মানুষের জন্য রাজনীতি করি। সুতরাং একটি মানুষও যাতে কষ্টে না থাকে সেদিকে আমার, আমাদের সকলেরই নজর দেওয়া উচিত। তিনি বলেন, করোনা একটি যুদ্ধ। আর এই যুদ্ধে একা কারো পক্ষে মোকাবেলা করা সম্ভব নয়। এজন্য আমাদের সকলের সামনে এগিয়ে আসতে হবে। যার যার সাধ্যানুযায়ী অসহায় মানুষগুলোর দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিতে হবে এবং মানুষ যাতে ঘরে থাকে সে বিষয়ে সাধারণ মানুষকে বোঝাতে হবে। তবেই আমরা করোনা নামক এ যুদ্ধে জয়লাভ করতে পারবো ইনশাল্লাহ।

আল্লাহকে স্মরণ করতে হবে। যার যার ধর্ম অনুযায়ী ঘরে বসে প্রার্থনা করতে হবে, যাতে করে সৃষ্টিকর্তা এই দুর্যোগ থেকে আমাদের রক্ষা করেন।মামুন মন্ডল বলেন, স্বাস্থ্যবিধি পালন করে বিশ্বের অনেক দেশ ইতিমধ্যেই করুণা মোকাবেলায় সফল হয়েছেন।তারা অনেক প্রাণহানি থেকে শেষ রক্ষা পেয়েছেন। আমাদের উচিত তাদেরকে অনুসরণ করা। আমাদের দেশ একটি ছোট দেশ। কিন্তু এখানে জনসংখ্যা অনেক বেশি। সেজন্য ঘনবসতিপূর্ণ দেশ হওয়ায় পুরোদেশ সহজেই আক্রান্ত হতে পারে। যার জন্য সকলেরই সে বিষয়ে সাবধানতা অবলম্বন করতে হবে।পরিবারের একজন আক্রান্ত হলে তিনি পরিবারের অন্য সদস্যদেরকেও আক্রান্ত করতে পারেন।
তাই যিনি পরিবারের কর্তা রয়েছেন তাকেও সে বিষয়ে সতর্ক হতে হবে। একটি পরিবার রক্ষা পেলে, রক্ষা পাবে পুরো সমাজ তথা দেশ।

মামুন মন্ডল বলেন, আমরা রাজনীতি করি মানুষের জন্য। আমার পরিবারের সদস্যদের কে আমি যতটুকু সময় দেই তার চেয়ে অনেক বেশি সময় আমি মানুষের কল্যাণার্থে ব্যায় করি। তিনি বলেন, মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের নিকট প্রার্থনা করি, তিনি যেন আমাকে এই শক্তি দান করেন, যাতে করে আমি আরো বেশি বেশি মানুষের পাশে থেকে তাদের সেবা করতে পারি। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনে বসবাসরত মানুষের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা জানেন আমি ইতিমধ্যেই বিভিন্ন গণমাধ্যমে ঘোষণা দিয়েছি মহান আল্লাহ চাইলে আপনাদের দোয়া নিয়ে আগামীতে গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করতে চাই। আর আল্লার রহমতে, আপনাদের দোয়ায় মেয়র নির্বাচিত হয়ে মানুষের কাছে থেকে তাদের আরো সেবা করতে চাই।

এজন্য তিনি সকলের সহযোগিতা ও দোয়া কামনা করেন। তিনি বলেন, আমি ছোটবেলা থেকেই বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক উন্নয়নমূলক কাজে নিজেকে সম্পৃক্ত করেছি। বিভিন্ন কল্যাণ মূলক সংগঠনের সাথে আমি কাজ করেছি। ছোটবেলা থেকেই বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে বুকে লালন করে রাজনীতি করে আসছি। আমি ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্র সংসদ নির্বাচনে বিপুল ভোটে ক্রীড়া সম্পাদক নির্বাচিত হয়েছিলাম। সেখানে ছাত্র-ছাত্রী শিক্ষক সহ সকলের অজস্র ভালবাসা পেয়েছিলাম। আমি আমার নিজের প্রতি আস্থা রেখে সর্বদা রাজনীতি করি।তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার এবং বঙ্গবন্ধুর আদর্শের রাজনীতি আমি সারা জীবন করে আসছি।

আব্দুল্লাহ আল মামুন মন্ডল গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ৩৫ নম্বর ওয়ার্ড থেকে বারবার বিপুল ভোটে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজ এর ক্রীড়া সম্পাদক ছিলেন। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য হয়েছিলেন তিনি। গাজীপুর তরুণ সংঘের সভাপতি ও তিনি। এছাড়াও বিভিন্ন স্কুল কলেজ মসজিদ মাদ্রাসা সহ একাধিক প্রতিষ্ঠানে তিনি সম্পৃক্ত রয়েছেন এবং যখনই পেরেছেন সাধ্যমতো সেসব প্রতিষ্ঠানের সাহায্য সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন।

আব্দুল আল মামুন মন্ডল বলেন ১৯৫২ সালের একুশে ফেব্রুয়ারিতে ভাষার জন্য আমরা রক্ত দিয়েছি, ১৯৭১ সালে মহান স্বাধীনতা যুদ্ধে আমাদের ৩০ লাখ লোক বুকের তাজা রক্ত ঢেলে দিয়েছিল । ২লক্ষ মা বোন তাদের সম্ভ্রম বিলিয়ে দিয়েছিল দেশের জন্য। এছাড়াও জ্বর জলোচ্ছ্বাস বন্যা খরা সহ বিভিন্ন প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলা করে আমরা একটি উন্নত সমৃদ্ধশালী দেশ জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি।তিনি বলেন, বাঙালি বীরের জাতি,এ জাতি কখনও মাথা নত করতে জানে না।

বঙ্গবন্ধুর ঘোষনাঅনুযায়ী এ জাতিকে দাবায়ে রাখা যাবে না। সুতরাং করোনা মোকাবেলায় আমরা হারবো না ইনশাল্লাহ। আল্লাহ চাহে তো খুব শীঘ্রই এই মহামারী থেকে আমাদের মুক্তি মিলবে। মামুন মন্ডল বলেন, চিকিৎসক-নার্স পুলিশ সাংবাদিক সহ জনপ্রতিনিধিরা করোনা মোকাবেলায় অসহায় দরিদ্র মানুষের পাশে এসে দাঁড়িয়েছেন। সুতরাং যারা এই মুহূর্তে মানুষের দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে নিজেদের আখের গোছাতে চায়, নিজেরা ফায়দা লুটতে চায়, তাদেরকে জানা উচিত মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর হুঁশিয়ারি কোনমতেই তারা ছাড় পাবে না।

সমাজের বিত্তবান সহ সকলের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, তাই আসুন আমরা সকলেই যার যার জায়গা থেকে অসহায় দরিদ্র মানুষগুলোর দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেই। তবেই আমরা একটি ক্ষুধামুক্ত সুন্দর সমাজ গড়তে পারব ইনশাল্লাহ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
%d bloggers like this: