আজ ১৬ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১লা মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

টঙ্গীতে মশার অত্যাচারে জনজীবন অতিষ্ঠ

মোঃ নজরুল ইসলাম,গাজিপুর প্রতিনিধিঃ

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের টঙ্গীতে মশার উপদ্রবে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে সাধারণ মানুষের জনজীবন। ৪০ লাখের বেশি মানুষের বসবাস দেশের অন্যতম সর্ববৃহৎ নগরী গাজীপুর সিটি করপোরেশনে। সিটি কর্পোরেশনের গুরুত্ব বিবেচনায় বিগত ২০১৮ সালে গাজীপুর মহানগরে মেট্রোপলিটন পুলিশিং কার্যক্রম চালু করেছে। টঙ্গীতে শিল্পকারখানা বেশী থাকায় দেশের বিভিন্ন আয়ের মানুষের বসবাস টঙ্গীতে ।

অথচ ঘনবসতিপূর্ণ টঙ্গীতে মশক নিধন কার্যক্রম মুখ থুবড়ে পড়ে আছে। মশার উপদ্রবে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে এলাকা বাসী। গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের বর্জ্য পরিদর্শক মদন চন্দ্র দাস জানান, মহানগরে মশক নিধনে জন্য ফগার মেশিন সংখ্যা ৩৫টি । টঙ্গীতে ৫টি ফগার মেশিন থাকলেও সাধারণ মানুষের সেবা না দিয়ে ,এই মেশিন মশক নিধন জন্য ব্যবহার হচ্ছে, উর্দ্ধতন ও প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের অফিস ও নেতাদের বাসাবাড়ির আশ-পাশে । টঙ্গী অঞল ২থেকে মশক নিধন কার্যক্রম প্রত্যাশা এলাকা বাসীর। টঙ্গী এলাকার স্থানীয় বাসিন্দার আব্দুল কাদের জানান, টঙ্গীতে দিন-রাত মশার উপদ্রব বাড়ছে, বাসা-বাড়িতে থাকা দুসাধ্য হয়ে পড়েছে। এলাকা বাসি সন্ধ্যা হলেই মশার অত্যাচারে অতিষ্ঠ হয়ে উঠছে।

মশার কয়েল জ্বালিয়েও মশার অত্যাচার থেকে পরিত্রাণ পাওয়া যাচ্ছে না। টঙ্গী বাজারের ব্যবসায়ী মোঃ আনোয়ার হোসেন জানান, গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের শাখা সড়কগুলোর ড্রেনেজ ব্যবস্থা নাজুক। ড্রেনের ময়লার গন্ধে এবং মশার অত্যাচারে রাস্তা-ঘাটে হাঁটাও দুসাধ্য হয়ে পড়েছে। আসরের পর থেকেই মশার উপদ্রবে রাস্তা দিয়ে হেঁটে চলাও মুশকিল। গাজীপুর সিটি করপোরেশনের প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) এস এম সোহরাব হোসেন জানান, কাউন্সিলর ও জনপ্রতিনিধি কি করছে? মশক নিধন তাদের দায়িত্ব ও কর্তব্য।

তারা ব্যবস্থা নেয় না কেন? ফগার মেশিন এবং ওষুধ দিতে আমরা প্রস্তুত। মহাসড়কের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টেও ময়লা আবর্জনার।এছাড়াও বিভিন্ন এলাকায় ঢাকানাবিহীন ড্রেনেজ ব্যবস্থা। কোথাও আবার সোয়ারেজের পানি উপচে শাখা সড়কে জমে আছে। মশা নিধনে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ¦ মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বলেন, চলতি বছরের মে মাস থেকে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মশক নিধন কার্যক্রম শুরু করবেন বলে যান ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ ক্যাটাগরীর আরো সংবাদ
%d bloggers like this: